ভ্যাট ফাঁকির সাড়ে ৭ কোটি টাকা দিতে নারায়ণগঞ্জ ক্লাবকে আল্টিমেটাম

রুদ্রবার্তা২৪.নেট: ভ্যাট গোয়েন্দা অধিদপ্তরের করা মামলায় আগামী ১৫ দিনের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ ক্লাবকে ৭ কোটি ৫৭ লাখ টাকা জমা দিতে বলা হয়েছে। টাকা জমা না দিলে পাওনা ভ্যাট আদায়ে কঠোর অবস্থানে যেতে পারে এনবিআরের ভ্যাট কর্তৃপক্ষ। বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) ভ্যাট গোয়েন্দার একটি মামলার সূত্রে এনবিআরের ভ্যাট কর্তৃপক্ষের ঢাকা দক্ষিণ কমিশনারেট থেকে নোটিশটি জারি করা হয়।
ভ্যাট গোয়েন্দা নারায়ণগঞ্জের অভিজাত ক্লাবের বিরুদ্ধে ২০১১-১২ থেকে ২০১৪-২০১৫ পর্যন্ত ৪ বছরের হিসাব তদন্ত করে ৩.৭৫ কোটি টাকার ভ্যাট ফাঁকির প্রমাণ পায়। যথাসময়ে ভ্যাট পরিশোধ না করায় আরো ৩.৮২ কোটি টাকার সুদ প্রয়োগের সুপারিশ করে ভ্যাট কর্তৃপক্ষ। ভ্যাট গোয়েন্দা অধিদপ্তর তদন্ত প্রতিবেদনটি নিষ্পত্তির জন্য ঢাকা দক্ষিণ ভ্যাট কমিশনারের নিকট প্রেরণ করে। দীর্ঘ শুনানি ও মামলা সংশ্লিষ্ট কাগজপত্র পর্যালোচনা করে ভ্যাট গোয়েন্দার দায়ের করা মামলার ভ্যাট ফাঁকির পরিমাণ বহাল রাখা হয়।
ঢাকা দক্ষিণ কমিশনারেটের জারি করা নোটিশে ভ্যাট গোয়েন্দার দাবিকৃত ৩.৭৫ কোটি টাকা চূড়ান্ত করা হয়েছে। একইসাথে, আগামি ১৫ দিনের মধ্যে এই টাকা জমা দিতে ক্লাব কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। নোটিশ অনুসারে মূল টাকা জমা দেয়ার পর নতুন করে সুদ হিসাব করে তা আদায় করা হবে। নির্ধারিত ১৫ কার্যদিবসের মধ্যে সমুদয় টাকা পরিশোধ করা না হলে প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ভ্যাট আইন অনুসারে কার্যক্রম গ্রহণ করা হতে পারে।

Please follow and like us: