নারায়ণগঞ্জে অস্ত্র ও ককটেলসহ ৭ ডাকাত গ্রেফতার

রুদ্রবার্তা২৪.নেট: নারায়ণগঞ্জে বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে বিদেশী পিস্তল, দেশীয় অস্ত্র ও বিপুল পরিমাণ ককটেলসহ ৭ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১১ এর একটি দল। বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দিবাগত রাত সোয়া ১২টার দিকে সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল এলাকার ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতার ব্যক্তিরা আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সদস্য বলে জানিয়েছে র‌্যাব।
তারা হলেন: বাবুল হোসেন (৩২), মো. সেলিম (৩২), রিপন ভূঁইয়া (২৬), রবিউল ইসলাম (২৬), আব্দুর রশিদ (৪৫), রফিকুল ইসলাম (৪০) এবং জাবেদ হোসেন (২৯)। তাদের কাছ থেকে ম্যাগাজিন ভর্তি একটি বিদেশী পিস্তল, তিন রাউন্ড গুলি, তিনটি চাপাতি, একটি হাতুড়ি, একটি কোরাবারী ও চুয়াল্লিশটি ককটেল উদ্ধার করা হয়।
সিদ্ধিরগঞ্জের আদমজীনগরে র‌্যাব-১১ এর সদর দফতরে এক সংবাদ সম্মেলনে অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্ণেল খন্দকার সাইফুল ইসলাম বলেন, আসামিরা আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সদস্য। এই সংঘবদ্ধ ডাকাত চক্র বড় বড় স্বর্ণের দোকান টার্গেট করে অতর্কিতভাবে হামলা করে ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে এবং অস্ত্র প্রদর্শন করে লুটপাট চালায়। দীর্ঘদিন ধরে তারা দেশের বিভিন্ন এলাকায় তাদের সহযোগীদের নিয়ে স্বর্ণের দোকানে ডাকাতি করে আসছে। স্বর্ণের দোকান ডাকাতির জন্য তারা সন্ধ্যা থেকে দোকান বন্ধের আগ মুহূর্ত পর্যন্ত সময়কে বেছে নেয়। বিগত কয়েক বছরে দেশের বিভিন্ন এলাকায় স্বর্ণের দোকানে ঘটে যাওয়া এই রকম বেশ কয়েকটি চাঞ্চল্যকর ডাকাতির সঙ্গে এই সংঘবদ্ধ ডাকাত চক্রের সদস্যরা জড়িত। গোয়েন্দা সূত্রে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে প্রায় দুই মাস যাবৎ কঠোর গোয়েন্দা নজরদারির মাধ্যমে এই ডাকাত দলকে শনাক্ত করে বিশেষ অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।
র‌্যাব-১১ এর অধিনায়ক জানান, আসামিরা লীপুর সদর উপজেলার কলেজ রোড এলাকায় একটি স্বর্ণের দোকানে ডাকাতি করার উদ্দেশ্যে রওনা দেয়ার জন্য সংঘবদ্ধ হয়ে অবস্থান করছিল। কয়েকদিন আগে ডাকাতির উদ্দেশ্যে ককটেল বানানোর সময় এই আন্তঃজেলা ডাকাত দলের প্রধান গ্রেফতার আসামি বাবুল হোসেনের পা বিস্ফোরণে পুড়ে যায়।

Please follow and like us: