সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হাজী ইয়াছিন মিয়ার অপরাধ ও দখলবাজির অবসান হবে কি?

রুদ্রবার্তা২৪.নেট: সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাজী ইয়াছিন মিয়া লেবাসধারী হাজী ইয়াছিন মিয়া। তাহার বিরুদ্ধে মিতালি মার্কেট সমিতি রেজি: নং-১৬৯৮ এর প্রায় সাড়ে চার হাজার দোকান অবৈধভাবে দখল করার অভিযোগ উঠেছে। তিনি অবৈধভাবে ৬০৯০ নং ভুয়া ভোটার দেখিয়ে মিতালি মার্কেটে স্বঘোষিত সভাপতি নির্বাচিত হন। প্রকৃতপক্ষে ওই ৬০৯০ নং ভেটারের প্রকৃত নাম জাহের আলী পাটোয়ারী। এইভাবে প্রতারনার মাধ্যমে মিতালি মার্কেটের দোকান মালিকদের কাছ থেকে কোটি কোটি টাকা আত্মসাত করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। সর্বোপরি মিতালি মার্কেটের কমিটির মেয়াদ শেষ হওয়ার পরও সে বহাল তবিয়তে থাকার চেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। সে অবস্থায় মিতালি মার্কেটে দুই গ্রুপে যেকোন মুহুর্তে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশংকা রয়েছে। এ বিষয়ে প্রশাসনের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন নিরীহ দোকান মালিকগণ। এহেন অবস্থায় মেয়াদ উত্তীর্ণ কার্যকরী কমিটি ও অভিযোগ দায়েরকারী প্রতিপক্ষ গ্রুপের অভিযোগ বিষয়ে ২০১৯ ও ২০২০ সালের তল্যাবলীর আলোকে ২ বছর মেয়াদী কার্যনির্বাহী কমিটির নির্বাচন সংক্রান্ত বিষয়ে পর্যালোচনাক্রমে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করার জন্য অত্র দপ্তরের নিম্নোক্ত ৩ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি দায়িত্ব প্রদান করা হয়। ৩ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি : (১) মোঃ আতাউর রহমান মন্ডল, সহকারী পরিচালক বিভাগীয় শ্রম দপ্তর, নারায়ণগঞ্জ। (২) মোস্তফা আজিজুল করিম, সহকারী পরিচালক বিভাগীয় শ্রম দপ্তর, নারায়ণগঞ্জ। (৩) মোঃ আলমগীর হোসেন, বিভাগীয় শ্রম দপ্তর, নারায়ণগঞ্জ। সূত্র মতে আরো জানা যায় মোঃ ফেরদৌস আহম্মদ সাধারণ সম্পাদক সেজে পরিচালক বিভাগীয় শ্রম দপ্তর নারায়ণগঞ্জ বরাবর বিজ্ঞ এডভোকেট মহোদয়ের মাধ্যমে গত ১৯/০৬/২০১৯ ইং তারিখে ই-মেইলে প্রেরিত নোটিশ পাঠান। উক্ত নোটিশের পরিপ্রেক্ষিতে গত ২৬/০৬/২০২০ ইং তারিখে পরিচালক খোরশেদ আলম উক্ত নোটিশের বর্ণিত তথ্য মতে বাদীর মিথ্যা তথ্য দিয়েছে মর্মে বিজ্ঞ এডভোকেট মহোদয়কে পত্রে অবগত করান। বিভাগীয় শ্রম অধিদপ্তর নারায়ণগঞ্জ গত ১০/০৬/২০২০ ইং তারিখে যে পত্রটির মেয়াদ উত্তীর্ণ কমিটির সভাপতি/সাধারণ সম্পাদক কে দেওয়া হয় উক্ত পত্রটি মেয়াদ উত্তীর্ণ কমিটির সাধারণ সম্পাদক মহামান্য হাইকোর্টে গত ০৮/০৭/২০২০ ইং তারিখে পরিচালকের উক্ত পত্রটি এস্টে অর্ডার করেন। পরবর্তীতে সমিতির সাধারণ সদস্যরা খবর পেয়ে সদস্য লোকমান খান গং মহামান্য হাইকোর্টের এপিল্যান্ট ডিভিশনের পরারষ গরংপবষষধহবড়ঁং চঊঞওঞওঙঘ ঘঙ ৩৯৪ ঙঋ ২০২০ তে উপস্থাপিত ৫ সদস্যের কমিটির মাধ্যমে খসড়া ভোটার তালিকা প্রণয়ণ কমিটি কার্যক্রম ও দায়িত্ব পালনে আদেশ পান সমিতির কার্য পরিচালনা করতে। এরপর আইনগত কোন বাঁধা নেই। ৩০/০৭/২০২০ ইং তারিখ পরিচালক নারায়ণগঞ্জ একটি পত্র মেয়াদ উত্তীর্ণ কমিটির সদস্য সহ জয়নাল আবেদীন ফারুক, জামান মিয়া, লোকমান খান, নাজিম উদ্দিন রাজু ও অন্যান্য সকল সদস্য কে ০৬/০৮/২০২০ ইং তারিখের মধ্যে অত্র দপ্তরের ডকুমেন্ট সহকারে নির্বাচন করতে আইনগত কোনো বাধা আছে কিনা তার স্ব-শরীরের উপস্থিত হয়ে অবগত করার জন্য। তা না হলে যে কমিটি জমা দিয়ে ঐ কমিটি ৯০ দিনের মধ্যে নির্বাচন করতে আইনগত কোন বাধা থাকবে না এতে করে কোন সদস্য পরে আপত্তি করলে আর কোন বিবেচনা করার সুযোগ নেই বলে জানান শ্রম অধিদপ্তর নারায়ণগঞ্জ।

Please follow and like us: