অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে জেলে যুবলীগ নেতাসহ ৫

রুদ্রবার্তা২৪.কম: আড়াইহাজারের মেঘনা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের অপরাধে যুবলীগ নেতা সাত্তারসহ ৫ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত।
বৃহস্পতিবার (২০ ফেব্রুয়ারি) দিনব্যাপী মেঘনা নদীতে সহকারী কমিশনার ভূমি ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. উজ্জল হোসেনের নেতৃত্বে এই অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযান পরিচালনা করার সময় একটি ড্রেজার ও একটি বাল্কহেড জব্দ করা হয়।
অভিযানে আড়াইহাজার কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়ন যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাত্তার জব্দকৃত ড্রেজার ম্যাজিস্ট্রেটের নিকট থেকে ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। এই অপরাধে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তাকে ৩ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।
অভিযানে বালু ব্যবসায়ী নোয়াখালীর দুলালের ছেলে নবী হোসেন (২০), আড়াইহাজারের বিবির কান্দীর জামালের ছেলে কামাল (৩০), চট্রগ্রামের বাতেনের ছেলে আজিজ (৪০) ও একই এলাকার বাতেনের ছেলে মোহাম্মদ আলীকে আটক করা হয়। আটকৃকতদের ৪ জনের প্রত্যেককে এক মাসের করে বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করা হয়।
নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. উজ্জ্বল হোসেন জানান, দীর্ঘ দিন ধরে আড়াইহাজার, সোনারগাঁ ও কুমিল্লা এলাকাতে মেঘনা থানার চালিভাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান লতিফ ও আড়াইহাজারের যুবলীগ নেতা সাত্তারসহ বেশ কিছু প্রভাবশালী অধৈব ভাবে বালু উত্তোলন করে আসছিল। এতে আড়াইহাজারের কমলাপুর, ডেঙ্গুরকান্দী, সায়েদাবাদ, খাগকান্দা দক্ষিণ নয়াপাড়া এলাকা বিলিন হতে চলছে। এই অভিযোগের প্রেক্ষিতে বুধবার থানা পুলিশ, খাগকান্দা নৌপুলিশ ও উপজেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান পরিচালনা করা হয়।
আড়াইহাজার উপজেলা চেয়ারম্যান মুজাহেদুর রহমান হেলো সরকার জানান, দীর্ঘ দিন ধরে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করছিল। যা আমরা উপজেলা প্রশাসনের সিদ্ধান্ত আমি নিজে থেকে এই অভিযান চালাই। এতে মেঘনা ভাঙ্গন থেকে আমার উপজেলার অনেক গুলো গ্রাম রক্ষা পাবে।

Please follow and like us: