ভাবীকে ধর্ষণ করতে গিয়ে দেবরের গোপনাঙ্গ কর্তন

রুদ্রবার্তা২৪.কম: আড়াইহাজারে বড় ভাইয়ের স্ত্রীকে (ভাবী) ধর্ষণ করতে গিয়ে মনির (৩০) নামে এক যুবকের গোপনাঙ্গ কর্তনের ঘটনা ঘটেছে।

শনিবার (৫ অক্টোবর) দিবাগত রাতে উপজেলার উচিৎপুরা ইউনিয়নের জাঙ্গালিয়া বুরুমদীপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় মনিরকে মুমূর্ষু অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। মনির উপজেলার উচিৎপুরা ইউনিয়নের জাঙ্গালিয়া বুরুমদীপাড়া গ্রামের মৃত সাদেকুর রহমানের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার উচিৎপুরা ইউনিয়নের জাঙ্গালিয়া বুরুমদীপাড়া গ্রামের মৃত সাদেকুর রহমানের বড় ছেলে তাজুল ইসলাম দীর্ঘ ৬ বছর ধরে দুবাই প্রবাসে রয়েছে। দুই সন্তানসহ স্ত্রী সুমাইয়া ঐ বাড়িতেই থাকে। সুমাইয়ার দেবর মনির দীর্ঘদিন যাবত তার সাথে অনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনের চেষ্টা করে আসছিলো।

শনিবার রাতে সুমাইয়া ঘুমন্ত অবস্থার তার ঘরে প্রবেশ করে মনির। পরে সুমাইয়াকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করার চেষ্টা করলে ধারালো ব্লেড দিয়ে মনিরের গোপনাঙ্গ কেটে দেয়। পরে মনিরকে গুরুতর অবস্থায় আড়াইহাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যায়। পরে অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করে।

আড়াইহাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. মনিরুজ্জামান জানান, প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়েছে। তাকে এ হাসপাতালে আনা হলে অবস্থা খারাপ হওয়ায় আমরা তাকে ঢাকায় প্রেরণ করি।

এ ব্যাপারে আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম জানান, এ ব্যাপারে আমাদের কাছে কোনো অভিযোগ আসেনি। অভিযোগ পেলে আইনত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Please follow and like us: