শরীয়তপুরে শিশু ধর্ষণ মামলায় কাঠমিস্ত্রীর যাবজ্জীবন

রুদ্রবার্তা২৪.কম: শরীয়তপুরে শিশু ধর্ষণ মামলায় তমিজ আলী বেপারী ওরফে মানিক (৩১) নামের এক যুবকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এছাড়া তার ৫০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও এক বছরের কারাদণ্ডের আদেশ দেয়া হয়েছে।
মঙ্গলবার দুপুরে শরীয়তপুর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক আ. ছালাম খান এ রায় দেন। রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

দণ্ডপ্রাপ্ত তমিছ আলী বেপারী ভেদরগঞ্জ উপজেলার সখিপুর থানার চরভাগা পশ্চিম ঢালীকান্দি গ্রামের মজিবর বেপরীর ছেলে। তিনি পেশায় একজন কাঠমিস্ত্রী।
রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট ফিরোজ আহমেদ রায়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন।
তবে আসামি পক্ষের আইনজীবী মুহাম্মদ কামরুল হাসান বলেন, এ রায়ে আমরা সন্তুষ্ট নই। আমরা উচ্চ আদালতে আপিল করব।
মামলার বিবরণে জানা গেছে, ২০১১ সালের ১৩ অক্টোবর বিকেলে সখিপুর থানার চরভাগা পশ্চিম ঢালীকান্দি এলাকায় সাত বছরের এক শিশুকে ধর্ষণ করে তমিজ আলী বেপারী। এ ঘটনায় ওই শিশুর বাবা বাদী হয়ে সখিপুর থানায় মামলা করেন। তদন্ত শেষে পুলিশ আদালতে অভিযোগপত্র দেয়। পরে আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের মাধ্যমে মামলার বিচারকাজ শুরু হয়। ছয়জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আদালত মঙ্গলবার এ রায় দেন।
মামলার বাদী জানান, এ রায়ে তারা সন্তুষ্ট। আসামিরা উচ্চ আদালতে গেলে সেখানেও যেন এ রায় বহাল থাকে এমটাই প্রত্যাশা করছি।

Please follow and like us: